যুক্তরাষ্ট্রে খোঁজ মিললো মানুষের মগজ খেকো অ্যামিবার!

যুক্তরাষ্ট্রের স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তারা বলছেন, তারা ফ্লোরিডাতে এমন এক বিরল জাতের ধরনের অ্যামিবা খুঁজে পেয়েছেন যেগুলো মানুষের মাথায় ঢুকে মগজ খেয়ে ফেলে।

ফ্লোরিডা স্বাস্থ্য বিভাগ বলছে, ইতোমধ্যে একজন ব্যক্তি “নিগলেরিয়া ফাওলেরি” নামের এই এককোষী প্রাণীর সংস্পর্শে এসেছেন। এক প্রতিবেদনে এখবর জানায় ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি।

এই আণুবীক্ষণিক এক-কোষী অ্যামিবা মগজে সংক্রমণ ঘটিয়ে থাকে এবং এটা সাধারণত প্রাণঘাতী হয়। উষ্ণ মিঠাপানিতে বাসকারী এই অ্যামিবা নাকের ভেতর দিয়ে মানুষের দেহে ঢোকে। তবে এটা একজন থেকে আরেকজনের দেহে ছড়ায় না বলে কর্মকর্তারা বলছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণাঞ্চলে সংক্রমণের ঘটনা ঘটলেও ফ্লোরিডাতে এটা বেশ বিরল। ঊনশিশো বাষট্টি সালের পর থেকে এপর্যন্ত মোট ৩৭ জন নিগলেরিয়া ফাওলেরি অ্যামিবায় আক্রান্ত হয়েছেন।

এই বিপজ্জনক অ্যামিবার ব্যাপারে ফ্লোরিডার হিলসবরা কাউন্টির বাসিন্দাদের সতর্ক করে দিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ।

এই আণুবীক্ষণিক এক-কোষী অ্যামিবা মগজে সংক্রমণ ঘটিয়ে থাকে এবং এটা সাধারণত প্রাণঘাতী হয়। গরম মিষ্টি পানিতে বাস এই অ্যামিবা নাকের ভেতর দিয়ে মানুষের দেহে ঢোকে। তবে এটা একজন থেকে আরেকজনের দেহে ছড়ায় না বলে কর্মকর্তারা বলছেন।

এই বিপজ্জনক অ্যামিবার ব্যাপারে স্বাস্থ্য বিভাগ ফ্লোরিডার হিলসবরা কাউন্টির বাসিন্দাদের সতর্ক করে দিয়েছে। তারা জনগণকে বলছে, পানির কল বা অন্য কোন উৎস থেকে পানি যেন কোন মতেই নাকে প্রবেশ না করে।

এই অ্যামিবায় যারা আক্রান্ত হয় তাদের মধ্যে জ্বর, মাথা ঘোরা, মাথাব্যথা এবং বমির উপসর্গ দেখা যায়। পাশাপাশি তাদের ঘাড় শক্ত হয়ে যায় এবং এক সপ্তাহ সময়ের মধ্যেই রোগী মারা যায়।

(ঢাকা টাইমস, ঘাটাইল ডট কম)/-