মিসরে ২৩০০ বছরের পুরোনো ৫০ মমির সন্ধান

মিসরের মিনায়াতে ২৩০০ বছরের পুরোনো অর্থাৎ তোলেমাইক যুগের ৫০টি মমি করা দেহের সন্ধান পেয়েছে দেশটির প্রত্নতাত্ত্বিকরা। শনিবার (২ ফেব্রুয়ারি) দেশটির পুরাতত্ত্ব মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে। খবর বিবিসি, দ্য গার্ডিয়ান।

খবরে বলা হয়েছে, সন্ধানকৃত ৫০ মমির মধ্যে ১২টি শিশুর। ধারণা করা হচ্ছে মমিগুলো ৩০৫-৩০ খ্রিষ্টপূর্বের। সম্প্রতি মিনায়ার এল গাবেল তুনার ৩০ ফিট গভীরে চারটি সমাধিকক্ষ থেকে এসব মমি উদ্ধার করা হয়েছে।

এসব মমির কয়েকটি কাপড়ে মোড়ানো ছিলো। আবার কয়েকটি পাথর ও কাঠের কফিনে রাখা ছিলো।

দেশটির পুরাতত্ত্ব সুপ্রিম কাউন্সিলের সেক্রটারি জেনারেল মোস্তফা অজিরি জানিয়েছেন, উদ্ধারকৃত মমিগুলোর পরিচয় এখনও জানা সম্ভব হয়নি। এর সাথে খোদাই করা বা লিখিত কোনো কিছু পাওয়া যায়নি। তবে মমিগুলোর অবস্থান ও রাখার ধারণ দেখে ধারণা করা হচ্ছে তারা সবাই গুরুত্বপূর্ণ কেউ ছিলেন।

কর্মকর্তারা জানান, মমিগুলো বেশ ভালো অবস্থায় পাওয়া যায়। মমি করার পদ্ধতি দেখে বোঝা যায়, মমির ব্যক্তিরা অনেক মর্যাদাপূর্ণ অবস্থানে ছিল। মমিগুলোতে ওই সময়ের হাতের কিছু লেখা সংযুক্ত ছিল। তৎকালীন সময়ের সাধারণ মানুষ লেখার জন্য এই অক্ষরগুলো ব্যবহার করত বলে ধারণা করা হচ্ছে।

মমি পাওয়ায় সেখানে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূতসহ অন্য দর্শকরা জড়ো হন, যেখানে ৪০টি মমি প্রদর্শন করা হয়।

মিনায়া ইউনিভার্সিটির প্রত্নতাত্ত্বিক স্টাডিজ গবেষণা কেন্দ্রের একটি যৌথ অভিযানের ফলে চলতি বছরের শুরুর দিকে প্রত্নতাত্ত্বিক এই নিদর্শন পাওয়া যায়।

(অনলাইন ডেস্ক, ঘাটাইলডটকম)/-

271total visits,1visits today