মধুপুরে শ্বশুরবাড়ীতে যুবকের রহস্যজনক মৃত্যু

টাঙ্গাইলের মধুপুরে ফাঁসিতে ঝুলে থাকা আরশেদ আলী (৩২) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। সোমবার (১৮ মে) সকাল ১০টার দিকে ওই যুবকের শ্বশুরবাড়ি উপজেলার মির্জাবাড়ী ইউনিয়নের থলবাড়ী গ্রামের একটি সুপারি গাছ থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে পুলিশ।

আরশেদ আলী একই উপজেলার শ্বশুরবাড়ির পাশের গ্রাম মির্জাপুরের মৃত আবুল বাদশার ছেলে। তিনি গাজীপুরের রড কারখানার শ্রমিক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

নিহতের বড় ভাই হায়দার আলী ও ছোট ভাই মিজান জানান, তাদের ভাই আরশেদের ৫/৬ বছর আগে থলবাড়ী গ্রামের আবুল হোসেনের মেয়ে রেহানার সঙ্গে বিয়ে হয়। দাম্পত্য জীবনে তাদের এক সন্তান আছে। পারিবারিক কলহের কারণে শ্বশুরবাড়ির লোকজনের সঙ্গে আরশেদের মাঝেমধ্যে ঝগড়া হতো।

তিনি জানান, রোববার  সন্ধ্যায় কর্মস্থল থেকে ফিরে আরশেদ শ্বশুরবাড়িতে যান। সকালে বাড়ির পাশে সুপারি গাছের সঙ্গে তার ঝুলন্ত মরদেহ পাওয়া যায়। এসময় তার প্যান্ট শার্ট পরা, পায়ে জুতা, কানে মাস্ক ঝুলানো। পা মাটি লেগে ছিল। এজন্য তাদের দাবি, পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে।

মধুপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তারিক কামাল জানান, ঘটনাস্থলে ওসি (তদন্ত) ছানোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে আসল ঘটনা বলা যাবে।

(মধুপুর সংবাদদাতা, ঘাটাইল ডট কম)/-