ভূয়া আইনজীবীর নামে টাঙ্গাইল আদালতে মামলা

টাঙ্গাইল আদালত চত্ত্বর সহ আশপাশের এলাকা এবং নিজ উপজেলায় আইনজীবী হিসেবে পরিচয় দিয়ে অনৈতিক সুবিধা নেওয়ার অভিযোগে মো. আফজাল হোসেন (৩৮) নামে এক ব্যক্তির নামে আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৫ আগস্ট) টাঙ্গাইলের সিনিয়র জুডিশিয়াল (কালিহাতী আমলী) আদালতে মামলাটি দায়ের করেছেন, জেলা অ্যাডভোকেট বার সমিতির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আব্দুল মালেক খান।

আদালতের বিচারক রুপম কুমার মামলাটি গ্রহন করে কালিহাতী থানা পুলিশকে দ্রুত সময়ের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করার আদেশ দেন।

মামলা সূত্রে প্রকাশ, টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের দুর্গাপুর গ্রামের মো. সোহরাব হোসেনের ছেলে মো. আফজাল হোসেন নিজেকে বিজ্ঞ আইনজীবী পরিচয় দিয়ে সাধারণ মানুষের সাথে প্রতারণা করছিল।

আদালতে মামলা পরিচালনার কথা বলে তিনি জনৈক আ. হাইয়ের কাছ থেকে ৭ হাজার ও শাহীনের কাছ থেকে ৫ হাজার টাকা গ্রহন করেন। নিজেকে প্রতিষ্ঠিত আইনজীবী পরিচয়ে তিনি স্থানীয় সভা-সমাবেশে অতিথি হিসেবে অংশ গ্রহন করে থাকেন।

এছাড়া আইনজীবী না হয়েও ভোটার তালিকায় নাম অন্তর্ভুক্ত করাকালে নিজের পেশা হিসেবে ‘আইনজীবী’ উল্লেখ করেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, তিনি বিজ্ঞ আইনজীবী নন এবং আইন পেশার সাথে সম্পৃক্তও নন।

আইনজীবী পরিচয়ে প্রতারণা করার কারণে বার সমিতি তথা প্রকৃত আইনজীবীদের সম্মান ক্ষুন্ন হওয়ার কারণ ঘটেছে।

বিষয়টি অ্যাডভোকেট বার সমিতির গোচরীভুত হলে কমিটির পক্ষ থেতে তাকে একাধিকবার সতর্ক করা হয়। এতেও তার মধ্যে সংশোধনী না আসায় কার্যকরী কমিটির সভায় আলোচনান্তে তার নামে আদালতে মামলা দায়ের করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

বাদি পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন, অ্যাডভোকেট বার সমিতির সাধারণ সম্পাদক একেএম নাছিমুল আক্তার।

এ সময় জেলা অ্যাডভোকেট বার সমিতির সভাপতি আলহাজ আবুল কাশেম ও বার সমিতির টাউট ও দালাল নির্মূল কমিটির আহ্বায়ক সিনিয়র অ্যাডভোকেট সামছুল আলম শাহাজাদা সহ বার সমিতির কার্যকরী কমিটির সদস্যরা বাদি পক্ষে উপস্থিত ছিলেন।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত মো. আফজাল হোসেন জানান, স্থানীয় পর্যায়ে একটি পরিবারের সাথে তাদের জমি-জমা নিয়ে বিরোধ রয়েছে। ওই বিরোধের জের ধরে মামলা হয়ে থাকতে পারে।

(টাঙ্গাইল সংবাদদাতা, ঘাটাইল ডট কম)/-