ভারতের বিতর্কিত আইন সিএএ কার্যকর

দেশজুড়ে তীব্র বিক্ষোভের মধ্যেই ভারতে কার্যকর হলো বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন সি.এ.এ। শুক্রবার (১০ জানুয়ারি) রাতে এক গেজেটে আইনটি কার্যকরের কথা জানিয়েছে দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এর প্রতিবাদ জানিয়ে বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষোভ করেন বহু মানুষ।

শুক্রবার রাতে বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের গেজেট প্রকাশ করে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়। এতে বলা হয়, ২০১৯ সালের নাগরিকত্ব সংশোধিত আইনের ধারা ১ এবং উপধারা ২ অনুযায়ী ২০২০ সালের ১০ জানুয়ারি থেকে আইনটি কার্যকর করা হলো।

সরকারের এমন সিদ্ধান্তের আভাস পেয়ে এদিন বিকেল থেকেই রাজধানী নয়াদিল্লির রাস্তায় অবস্থান নেন কয়েক হাজার মানুষ। দিল্লি ছাড়াও বিক্ষোভ হয়েছে হায়দ্রাবাদে। বিজেপি সরকার দেশকে সংঘাতের দিকে ঠেলে দিতেই এমন উদ্যোগ নিয়েছে বলে অভিযোগ বিক্ষোভকারীদের।

এদিকে, ভারতের মুসলিমরা যদি নিজেদের নিপীড়িত মনে করেন, তাহলে তাদেরকে দেশ ছেড়ে পাকিস্তান চলে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন উত্তর প্রদেশের বিজেপি’র সাংসদ বিক্রম সাইনি। একইসঙ্গে, ভারতীয় মুসলিমদের নাগরিকত্ব দেয়ার জন্য পাকিস্তানে আইন পাস হওয়া উচিৎ বলেও জানান তিনি।

বিতর্কিত আইনটি নিয়ে দেশজুড়ে চলমান উত্তেজনার মধ্যেই দুইদিনের সফরে শনিবার পশ্চিমবঙ্গ সফরে আসছেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির। রাজ্য মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্ধ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে বৈঠকেরও কথা রয়েছে তার।

গত বছর ১১ই ডিসেম্বর ভারতের পার্লামেন্টে পাস হয় নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন। নতুন নাগরিকত্ব আইনে প্রতিবেশী বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে ২০১৫ সালের আগে ধর্মীয় নির্যাতনের মুখে দেশটিতে আসা অমুসলিম শরণার্থীদের নাগরিকত্ব দেয়ার কথা বলা হয়েছে।

নতুন নাগরিকত্ব আইন কার্যকরের ঘোষণা এলেও তা সব রাজ্যে বাস্তবায়নে মোদি সরকারকে চরম বাধার মুখে পড়তে হবে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। এরই মধ্যে আইনের বিরুদ্ধে আদালতের দ্বারস্থ হয়েছেন বিরোধীরা।

(সময়টিভি, ঘাটাইলডটকম)/-