ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে জনস্রোত ঠেকাতে কঠোর অবস্থানে পুলিশ

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে জনস্রোত ঠেকাতে কঠোর অবস্থান নিয়েছেন আইন-শৃঙ্খলারক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। জনস্রোত ঠেকাতে মহাসড়কের বিভিন্ন পয়েন্টে চেকপোস্ট (চকি) বসিয়ে যানবাহন তল্লাশি করে বৈধ কাগজপত্র দেখছেন। জরুরি প্রয়োজন ছাড়া অধিকাংশ যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়ায় সীমাহীন দুর্ভোগ মাথায় নিজ নিজ গন্তব্যে পায়ে হেঁটেই ছুটে চলেছেন সাধারণ লোকজন। বুধবার (২০ মে) ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের বিভিন্ন পয়েন্ট সরেজমিন ঘুরে এমন চিত্রই দেখা গেছে।

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের মির্জাপুর বাইপাস পোস্টকামুরী চরপাড়ায় দায়িত্বরত ট্রাফিক সার্জেন্ট মো. রুবায়েত হোসেন বলেন, পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজি) ড. বেনজীর আহমেদ স্যার এর নির্দেশনায় কঠোর অবস্থান নিয়েছেন পুলিশ বাহিনী। দেশে করোনা ভাইরাস মহামারি ঠেকাতে যে কোন উপায়ে জনসমাগম বন্ধের কঠোর নির্দেশনা দিয়েছেন তিনি।

ঢাকা থেকে কোন লোকজন ঢাকার বাইরের জেলায় যেতে পারবেন না এবং বাইরের জেলা থেকে কোন লোকজন ঢাকায় প্রবেশ করতে পারবেন না। যে যেখানে অবস্থান করছেন সেখানে অবস্থান করেই ঈদ উৎসব পালন করবেন। আমরা সরকার এবং পুলিশের মহাপরিদর্শকের নির্দেশ পালন করে যাচ্ছি।

জনসমাগম ঠেকাতে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের চন্দ্রা, মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজ সংলগ্ন স্কয়ার এলাকা, গোড়াই হাইওয়ে থানা চেকপোস্ট, মির্জাপুর বাইপাস, টাঙ্গাইল বাইপাস, এলেঙ্গা ও বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্বপ্রান্তসহ গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন পয়েন্টে চেকপোস্ট (চকি) বসানো হয়েছে।

ট্রাফিক পুলিশ, হাইওয়ে পুলিশ, থানা পুলিশ, জেলা পুলিশ ও র‌্যাব বাহিনীর সদস্যরা জনসমাগম ঠেকাতে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

এদিকে মহাসড়কের গোড়াই, হাটুভাঙ্গা, দেওহাটা, মির্জাপুর বাইপাস, পুষ্টকামুরী চরপাড়া, পাকুল্যা ও নাটিয়াপাড়া এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখেই লোকজন রিকশা, ভ্যান, ঠেলাগাড়ি, অটোসহ বিভিন্ন ছোট ছোট যানবাহনে ভেঙ্গে ভেঙ্গে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে গন্তব্যে ছুটে চলেছেন। অনেকেই পায়ে হেঁটেই বাড়ির পথে ছুটে চলেছেন।

গাজীপুর থেকে রংপুর যাচ্ছেন পোশাক শ্রমিক মনসুর আলী। তিনি বলেন, পরিবারের সঙ্গে ঈদ করার জন্য দুর্ভোগ আর কষ্ট মাথাই নিয়েই বাড়ি যাচ্ছি। কখনো হেঁটে কখনো রিকশা ভ্যানে করেই যাচ্ছি। তার মত অনেকেই এমন কথা জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে মির্জাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. সায়েদুর রহমান ও গোড়াই হাইওয়ে থানার ওসি মো. মনিরুজ্জামান মনির বলেন, মহাসড়কে যানবাহন ঠেকাতে পুলিশ প্রশাসন দিনরাত দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন। পরবর্তী নির্দেশনা না আসা পর্যন্ত তারা মহাসড়কে দায়িত্ব পালন করে যাবেন।

(টাঙ্গাইল সংবাদদাতা, ঘাটাইল ডট কম)/-