জামায়াতের নতুন আমির শফিকুর রহমান

ডা. শফিকুর রহমান বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর নতুন আমির হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। সংগঠনের সদস্যদের (রুকন) প্রত্যক্ষ ভোটে তিনি নির্বাচিত হন। এর আগে তিনি দলের সেক্রেটারি জেনারেল ছিলেন। সংগঠনটির প্রচার বিভাগের এম আলম স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

গত ১৭ অক্টোবর থেকে ১০ নভেম্বর পর্যন্ত এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন আজ নির্বাচনের ফল ঘোষণা করেছে।

ডা. শফিকুর রহমান ১৯৫৮ সালের ৩১ অক্টোবর মৌলভীবাজার জেলার কুলাউড়া উপজেলার ভাটেরা ইউনিয়নে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম মরহুম আবরু মিঞা ও মাতার নাম মরহুমা খাতিবুন নেসা। তার বর্তমান ঠিকানা সিলেট মহানগরীর শাহপরান থানার সবুজবাগ এলাকায়।

তিনি ১৯৮৩ সালে সিলেট মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস পাস করেন। তিনি ছাত্রজীবনে ইসলামী ছাত্রশিবিরের সিলেট শহর শাখার সভাপতি ছিলেন। তিনি ১৯৮৫ সালে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় মজলিসে শূরার সদস্য হন।

দেশের রাজনীতিতে চরম কোণঠাসা জামায়াতের দৃশ্যমান কোনো কর্মসূচি দেখা যাচ্ছে না। কোনো ধরনের সভা-সমাবেশ শেষ কখন দেখা গিয়েছিল তা দলের নেতাকর্মীরাও হয়তো বলতে পারবে না। শুধুমাত্র প্রেস রিলিজের মাধ্যমে জানা যায় দলটির বিভিন্ন কার্যক্রম। এমন সময়ে জামায়াতের কেন্দ্রীয় শুরা সদস্যদের ভোটে সভাপতি নির্বাচিত হলেন দলটির বর্তমান সেক্রেটারি জেনারেল ডা. শফিকুর রহমান।

ভোটের তিন প্যানেলে ছিলেন-জামায়াতের নায়েবে আমির ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মুজিবুর রহমান, দলটির বর্তমান সেক্রেটারি জেনারেল ডা. শফিকুর রহমান এবং আরেক নায়েবে আমির ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ার।

ডা. শফিকুর রহমানের গ্রামের বাড়ি সিলেটের কুলাউড়ার ভাটারা এলাকায়। তার রাজনৈতিক জীবনের সূচনা জাসদ ছাত্রলীগের হাত ধরে। ১৯৭৪ সালে সিলেটের এমসি কলেজে উচ্চ মাধ্যমিকে পড়ার সময় জাসদ ছাত্রলীগে যোগ দেন। এরপর সেখান থেকে পাস করে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজে এমবিবিএস ভর্তি হওয়ার পর ছাত্রশিবিরে যোগ দেন। এই প্রতিষ্ঠানে পরবর্তীতে তিনি শিবির সভাপতি নির্বাচিত হন। পরে শহর ছাত্রশিবিরের সভাপতিও ছিলেন ডা. শফিকুর রহমান।

জামায়াতে আসার পর ডা. শফিকুর রহমান সিলেট মহানগরীর আমীর, অবিভক্ত জেলা আমির এবং কেন্দ্রীয় কমিটির সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

(বিশেষ প্রতিবেদক, ঘাটাইলডটকম)/-