জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ওয়াহিদুজ্জামান চাকরিচ্যুত

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে ফেসবুকে অশালীন ও আপত্তিজনক মন্তব্যের অভিযোগে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল বিষয়ের সহকারী অধ্যাপক এ কে এম ওয়াহিদুজ্জামানকে চাকরিচ্যুত করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ দপ্তর থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এছাড়া দায়িত্ব অবহেলা, অসদাচরণ, পলায়ন ও প্রতারণার অভিযোগে আরও দুজনকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে। তারা হলেন- মনোবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. শামসুদ্দীন ইলিয়াস ও নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আতাউর রহমান।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েব সাইটে এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ওয়াহিদুজ্জামানের চাকরিচ্যুতির ব্যাপারে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রী ও তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে ফেসবুকে অশালীন ও আপত্তিজনক মন্তব্য করায় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল বিষয়ের সহকারী অধ্যাপক এ কে এম ওয়াহিদুজ্জামানের বিরুদ্ধে জননেত্রী পরিষদের সভাপতি এ বি সিদ্দিকী ঢাকার মূখ্য মহানগর হাকিম আদালতে মামলা দায়ের করেন।

পরে ওয়াহিদুজ্জামান আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিনের আবেদন করলে আদালত তাকে কারাগারে সোর্পদ করেন। তাকে কারাগারে সোপর্দ করার দিন থেকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। এরপর থেকে তিনি পলাতক রয়েছেন।

আরও বলা হয়, প্রধানমন্ত্রী ও তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে ওই শিক্ষকের এ ধরনের অশালীন ও আপত্তিজনক মন্তব্যের জন্য এবং তার নিরুদ্দেশ থাকার বিষয়টি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ গুরুত্বের সাথে বিবেচনা করে।

পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকরি বিধি অনুযায়ী তদন্ত প্রক্রিয়ার বিভিন্ন ধাপ অনুসরণ করে গত ২ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের ২০৯তম সভায় ওয়াহিদুজ্জামানকে চাকরি হতে বরখাস্ত করা হয়েছে বলে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

(স্টাফ রিপোর্টার, ঘাটাইল ডট কম)/-