জনগণের আশা পূরণ করতে চান ইভিএমে পাশ করা ভুঞাপুরের ইউপি সদস্য

টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলার অর্জুনা ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নং ওয়ার্ডের উপ-নির্বাচনে ডিজিটাল পদ্ধতি ইভিএমের মাধ্যমে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ নির্বাচনে ৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দিতা করেন। প্রার্থীরা হলেন- মনোহর ভূইয়া (মোরগ), মেহেদী হাসান খান (তালা), মো. মোজাম্মেল হোসেন (টিউবওয়েল), সোহেল খান (ফুটবল)। এদের মধ্য ৫৭২ ভোট পেয়ে সোহেল খান জয়লাভ করেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মো. মোজাম্মেল হোসেন ৪৮১ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়।

সোমবার (৩০ ডিসেম্বর) অর্জুনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সকাল ৯ টা থেকে শুরু হয় ভোট গ্রহন। এই ওয়ার্ডে মোট ভোটার সংখ্যা ২১৬২ জন। অন্যদিকে নির্বাচনে আইনশৃঙ্খলা কাজে র‌্যাবের ২ টি ও পুলিশের ১ টি টহল টিম ছাড়াও ৩২ জন সদস্য নিয়োজিত ছিলেন বলে ভূঞাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ রাশিদুল ইসলাম জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার (৩১ ডিসেম্বর) দুপুরে বিজয়ী প্রার্থী সোহেল খান এক স্বাক্ষাতকারে বলেন, বিগত ২০১১ সালের নির্বাচনে আমার ৩ নং ওয়ার্ডের জনগণ ভোট দিয়ে বিজয়ী করে এলাকার সেবা করার সুযোগ করে দিয়ে ছিলেন। এবারের ২০১৯ সালের গত ৩০ ডিসেম্বরে উপ-নির্বাচনেও জনগণ তাদের মূল্যবান ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করেছেন। এ জন্য জনগণের কৃতজ্ঞ।

নব-নির্বাচিত সোহেল খান বলেন, জনগণ যে আশা নিয়ে আমাকে বিজয়ী করেছেন তাদের আশাগুলো পূরণ করার চেষ্টা করব। এলাকার বিভিন্ন রাস্তা-ঘাট, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মান উন্নয়নে কাজ করে যাব। এলাকায় মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও বাল্যবিয়ে প্রতিরোধ গড়ে তোলে ডিজিটাল এলাকা হিসেবে রুপান্তর করব সকলের সহযোগীতায়।

প্রসঙ্গত প্রকাশ, উপজেলার অর্জুনা ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নং ওয়ার্ডের সদস্য শফিকুল ইসলাম সড়ক দূর্ঘটনায় মৃত্যুবরণ করায় এই ওয়ার্ডটি শূণ্য ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। পরে ৩০ ডিসেম্বর এই ওয়ার্ডে ভোটগ্রহণের তারিখ ঘোষণা করা হয়।

(ভুঞাপুর সংবাদদাতা, ঘাটাইলডটকম)/-