চীন থেকে এলো করোনার চিকিৎসা সামগ্রী

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় চীনের পাঠানো ১০ হাজার টেস্টিং কিট ও পারসোনাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট (পিপিই) এবং এক হাজার ইনফ্রারেড থার্মোমিটার ঢাকায় পৌঁছছে। বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) চীনের কুনমিং থেকে বিশেষ বিমানে বিকাল ৪টা ২৫ মিনিটে ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছায় এসব চিকিৎসা সামগ্রী।

ঢাকাস্থ চীনের দূতাবাস এই তথ্য নিশ্চিত করেছে।

এর আগে ঢাকায় নিযুক্ত চীনের ডেপুটি চিফ অব মিশন হুয়ালং ইয়ান তার ভেরিফায়েড ফেসবুকে এক বার্তায় জানান, চীন থেকে বিশেষ বিমানে করোনার চিকিৎসা সামগ্রী বিকাল ৪টায় ঢাকায় পৌঁছাবে।

এদিকে ঢাকাস্থ চীন দূতাবাস জানাচ্ছে, চীন থেকে দ্বিতীয় ধাপে আসা করোনা মোকাবিলায় ব্যবহৃত চিকিৎসা সামগ্রীর সরবরাহ গ্রহণ করতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন ঢাকায় চীনের রাষ্ট্রদূত লি জিমিংয়ের সঙ্গে আজ সন্ধ্যায় শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে উপস্থিত থাকবেন।

চীন দূতাবাস সূত্রে জানা যায়, চীনের কুনমিং থেকে আসা বিশেষ বিমানে দশ হাজার টেস্টিং কিট, চীনের পাঠানো দ্বিতীয় চালানে দশ হাজার পারসোনাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট (পিপিই) ও এক হাজার ইনফ্রারেড থার্মোমিটারসহ মেডিকেল সরঞ্জাম রয়েছে।

গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিন চীনের উহান শহরে প্রথম করোনা শনাক্ত হলেও অচেনা ভাইরাসটি সেখানে ভয়াবহ আকার ধারণ করে ফেব্রুয়ারিতে। চীনে ভয়াবহ আকার ধারণ করা করোনাভাইরাস মোকাবিলায় চীনকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা স্মারক হিসেবে ১০ লাখ হাতমোজা, পাঁচ লাখ মাস্ক, এক লাখ ৫০ হাজার ক্যাপ, এক লাখ হ্যান্ড স্যানিটাইজার, ৫০ হাজার জুতার কাভার ও আট হাজার গাউন উপহার দেয় বাংলাদেশ।

করোনাভাইরাসের প্রকোপ থেকে চীন অনেকটাই সেরে উঠেছে। এবার রোগটির প্রাদুর্ভাব ঘটছে বাংলাদেশসহ বিশ্বের বেশির ভাগ রাষ্ট্রে।

(ঢাকা টাইমস, ঘাটাইল ডট কম)/-