ঘাটাইলের সাগরদিঘীতে নির্বাচনী সহিংসতায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে একজন নিহত

টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলার সাগরদিঘী ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে ভোট গ্রহণের আগে ব্যালট পেপার ছিনতাইকালে দু’পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। এসময় পুলিশের গুলিতে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন বলে খবর পাওয়া গেছে। বুধবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে উপজেলার সাগরদিঘী গুপ্তবৃন্দাবন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মালেক মিয়া (৪৫) ওই ইউনিয়নের গুপ্ত বৃন্দাবন এলাকার নেছার আলীর ছেলে।

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার সকালে ওই কেন্দ্রের নির্বাচন স্থগিত ঘোষণা করা হয়েছে। তবে অন্যান্য কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ চলছে বলে জানা গেছে।

এ ব্যাপারে টাঙ্গাইল পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায় জানান, রাত ৩টার দিকে প্রায় ১০০ থেকে ১৫০ লোক ব্যালট পেপার ছিনতাইয়ের জন্য ওই কেন্দ্রে হামলা চালায়। এসময় প্রিজাইডিং অফিসারের নির্দেশে পুলিশ গুলি চালিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এসময় একজন নিহত হয়েছেন বলে তিনি জানতে পেরেছেন।

জানা যায়, গুপ্তবৃন্দাবন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে বুধবার দিবাগত রাত ৩টা দিকে সাগরদিঘী ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী হেকমত সিকদারের লোকজন ব্যালট পেপার ছিনতাই করে সিল দিচ্ছে এমন খবর ছড়িয়ে পড়ে। এসময় স্বতন্ত্র প্রার্থী হাবিবুল্লাহ বাহারের সমর্থকরা সেখানে হামলা চালায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ গুলি চালায়। এসময় গুলিবিদ্ধ হয়ে আব্দুল মালেক (৪৫) নামে এক ব্যক্তি নিহত হন।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা তাজুল ইসলাম জানান, ইতোমধ্যে নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে ওই ভোটকেন্দ্র স্থগিত করা হয়েছে।

(ঘাটাইল সংবাদদাতা, ঘাটাইল.কম)/-