আমন ধানের ভালো ফলনের আশা কালিহাতীর কৃষকদের

রোপা আমন ধানের ভালো ফলনের আশা করছেন টাঙ্গাইলের কালিহাতীর কৃষকরা। উপজেলার যেদিকে তাকানো হয় সেদিকেই রোপা আমন ধানের দিগন্ত বিস্মৃত সবুজের সমারোহ। ধান গাছের তেজদীপ্ততা দেখে কৃষকদের চোখে মুখে আশার আলো ফুটে উঠেছে। ধান খুব ভালো হওয়ায় সস্তি ফিরে পেয়েছে তারা। পাশাপাশি চলতি মৌসুমে এখন পর্যন্ত বিদ্যুৎ সরবরাহ ভালো থাকায় এবং সার, ডিজেল, পানি ও কীটনাশকসহ প্রয়োজনীয় কৃষি উপকরন সহজেই সরবরাহ পাওয়ায় কৃষকরা এবার ভালো ফলনের আশা করছেন।

উপজেলার বল্লা, সহদেবপুর, নাগবাড়ী, পারখী, সিলিমপুর, ঝাটিবাড়ি, বর্তা, পাথালিয়া, ব্রজগাতী, রামপুর এলাকাসহ বিভিন্ন জায়গায় ধান খুব ভালো হয়েছে। উপজেলার ব্রজগাতী গ্রামের কৃষক লিটন বলেন, এবার ১০০ শতাংশ জমিতে রোপা আমনের আবাদ করেছি। আশা করি ফলন খুব ভালো হবে। গো-খাদ্যের অভাবও থাকবে না।

বর্তা গ্রামের কৃষক জুলহাস বলেন, আমি ২০০ শতাংশ জমিতে আমন আবাদ করেছি। ফলন ভালো হবে আমি আশা করছি। ধানের চেহারা দেখে মন ভরে গেছে। আশানুরুপ ফল পাবো এটা আমার বিশ্বাস। ১০/১২ দিনের মধ্যে ধান ঘরে তুলতে পারবো।

উপজেলার ভারপ্রাপ্ত কৃষি কর্মকর্তা ফারহানা মামুন জানান, এ মৌসুমে ৭ হাজার ১ শত ২৫ হেক্টর জমিতে রোপা আপন চাষের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারন করা হলেও আবাদ হয়েছে ৫ হাজার ৪৩ হেক্টরে জমিতে। অধিক বৃষ্টি ও বন্যার কারনে যে জমিগুলোতে আমন আবাদ সম্ভব হয়নি সে জমিগুলোতে সরিষা, গম, ভূট্টা, চিনাবাদাম আবাদ হচ্ছে। ২০১৯-২০২০ সালের রবি মৌসুমে প্রনোদনা কর্মসূচীর আওতায় ১৬৬০ জন কৃষকদের মাঝে সরিষা, গম, ভূট্টা ও সূর্যমূখী বীজ বিতরন করা হবে। সকল সুযোগ সুবিধা যেমন বীজ, সার ও কীটনাশক যথা সময়ে কৃষকদের হাতের নাগালে পাওয়ার রোপা আমনের ফলন আশা করি ভালোই হবে ।

(শুভ্র মজুমদার, ঘাটাইলডটকম)/-