স্পেশাল অলিম্পিকে মধুপুরের দুই প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী

প্রতিবন্ধীদের অংশগ্রহণে এবারের ওয়াার্ল্ড স্পেশাল অলিম্পিকে অংশ নিতে যাচ্ছে টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলার আরিফ ও আবুল হোসেন নামের দুই প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী। গতকাল শুক্রবার (৮ মার্চ) থেকে দুবাইয়ের আবুধাবিতে অনুষ্ঠিত স্পেশাল অলিম্পিকের ভলিবল ও  হ্যান্ডবল প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে তারা দুবাইয়ের উদ্দ্যেশে রওয়ানা হয়েছেন।

আরিফ মধুপুর উপজেলার আউশনারা বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী ও অটিস্টিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী, সে আউশনারা গ্রামের দিন মজুর জুলহাস উদ্দিনের ছেলে। এবং আবুল হোসেন উপজেলার দানকবান্দা গ্রামের দিন মজুর চান মিয়ার ছেলে। এই প্রথম একই বিদ্যালয়ের আরিফ ও আবুল উল্লিখিত ইভেন্টে জাতীয়ভাবে চ্যাম্পিয়ান হয়ে আন্তর্জাতিক প্রতিযোগেতায় অংশ নিতে দুবাই যাওয়ার যোগ্যতা অর্জন করেছে।

আউশনারা বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী ও অটিস্টিক বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা ও পরিচালনা কমিটির সভাপতি আলী আকবর জানান, ২০১৬ সালে প্রতিষ্ঠিত বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠার স্বল্প সময়ে দুইজন বুদ্ধি প্রতিবন্ধীকে জাতীয়ভাবে চ্যাম্পিয়ান করে আন্তর্জাতিক অঙ্গণের প্রতিযোগিতার জন্য প্রস্তুত করা সত্যি স্বপ্নের মতো লাগছে।

তিনি আরও বলেন, শুধু এলাকার নয় মধুপুর তথা দেশের জন্য সাফল্য বয়ে আনবে এ দুই বুদ্ধি প্রতিবন্ধী।

উল্লেখ্য, ২০০৩ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত ওয়ার্ল্ড স্পেশাল অলিম্পিক ছাড়াও আন্তর্জাতিক নানা আয়োজনে অংশ নিয়ে সোসাইটি ফর দ্য ওয়েলফেয়ার অব দ্য  ইন্টেলেকচুয়াল ডিসএবল- সুইড বাংলাদেশের মধুপুর শাখার বুদ্ধি প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা অনেক পদক অর্জন করেছে।

ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক খালেদা নাসরিন জানান, স্পেশাল অলিম্পিক ছাড়াও আন্তর্জাতিক নানা প্রতিযোগিতায় বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ১৮ টি স্বর্ণপদক, ২২ টি রৌপ্য পদক ও ১৪ টি ব্রোঞ্জ পদক অর্জন করে মধুপুরকে আলোকিত করেছে। এবার এ স্কুল সে সুযোগ না পেলেও আউশনারা বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ও অটিস্টিক বিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী মধুপুরের প্রতিনিধিত্ব করে সুনাম বয়ে আনবে।

(মধুপুর সংবাদদাতা, ঘাটাইলডটকম)/-

55total visits,1visits today