সর্বকালের সেরা ম্যারাডোনা

সর্বকালের সেরা ফুটবলার কে? এ নিয়ে বিতর্কটা চিরকালীন। কারো মতে পেলে, কারো মতে ডিয়েগো ম্যারাডোনা। কারো মতে ইয়োহান ক্রুইফ। কেউ বলেন লিওনেল মেসির নাম। বিতর্কটা হয়তো চিরকালই চলবে। তবে বিশ্ব ফুটবলপ্রেমীরা যত দ্বিধাদ্বন্দ্বে থাকুক, ইংল্যান্ডের বিশ্বখ্যাত ফুটবল সাময়িকী ফোর ফোর টু-র কাছে এই প্রশ্নে কোনো দ্বিধা নেই। তাদের মতে পেলে কিংবা ইয়োহান ক্রুইফ নন, সর্বকালের সেরা ফুটবলার ম্যারাডোনা।

গতকাল শুক্রবার সর্বকালের সেরা ১০০ জন ফুটবলারের তালিকা প্রকাশ করেছে ফোর ফোর টু। তাতে সবার উপরে আর্জেন্টিনার ১৯৮৬ বিশ্বকাপ জয়ের নায়ক ডিয়েগো ম্যারাডোনা। ব্রাজিলকে তিন তিনটি বিশ্বকাপ জেতানো পেলে ম্যারাডোনার সঙ্গে তো পারেননি-ই, হালের মেসির সঙ্গেও পারেননি। ‘ফুটবলরের রাজা’ উপাধি পাওয়া পেলে ও টোটাল ফুটবলের ধারক ক্রুইফকে টপকে তালিকার দুই নম্বরে জায়গা করে নিয়েছেন মেসি!

সাম্প্রতিক সময়ে ফুটবল মাঠে মেসির সবচেয়ে বড় প্রতিদ্বন্দ্বী যিনি, সেই ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো আছেন ৫ নম্বরে। মেসি-রোনালদোর মাঝখানে জায়গা পেয়েছেন পেলে ও ক্রুইফ। পেলে তিনে, ক্রুইফ চারে। ফ্রান্সকে ১৯৯৮ বিশ্বকাপ ও ২০০০ ইউরো জেতানো জিনেদিন জিদানের জায়গা হয়েছে ৮ নম্বরে।

আর্জেন্টিনা জাতীয় দলের হয়ে বড় কোনো শিরোপা জেতেননি মেসি। তবে ক্লাব বার্সেলোনার হয়ে জিতেছেন সম্ভাব্য সবকিছুই। তারপরও পেলে, ক্রুইফদের মতো কিংবদন্তিদের পেছনে তার দুইয়ে জায়গা করে নেওয়াটা বিস্ময়করই। ফোর ফোর টু অবশ্য বলেই দিয়েছে, তাদের এই তালিকা হয়তো অনেকেরই পছন্দ হবে না। পাঠকদের তাই প্রতিক্রিয়া জানানোরও অনুরোধ করেছে সাময়িকিটি।

ক্যারিয়ারে কে কতটি ট্রফি জিতেছেন, সেটা বিবেচনাতেই নেয় ফোর ফোর টু। তারা তালিকাটা করেছে খেলোয়াড়দের খেলার মানদণ্ড বিচার করে। ‘সরাসরি খেলা দেখলেই বুঝতে পারবেন’-এটাই তাদের বিচারের মূল ভিত্তি। ৫৬ বছর বয়সী ম্যারাডোনাকে ‘সর্বকালের সেরা’ হিসেবে বেছে নেওয়ার পেছনে তাদের যুক্তি, ‘ফুটবল পায়ে ম্যারাডোনার খেলা যারা দেখেছে তারাই বুঝতে পারবে।’

তবে যত যুক্তিই তারা তুলে ধরুক, ফোর ফোর টুর এই তালিকা চিরকালীন বিতর্কটাকে মুছে তো ফেলতে পারবেই না; উল্টো কিছু দিনের জন্য হয়তো নতুন বিতর্কের ঝড় তুলবে।

নিচে তালিকার সেরা ১০-এ জায়গা পাওয়া খেলোয়াড়দের নাম উল্লেখ্য করা হলো:

১. ডিয়েগো ম্যারাডোনা (আর্জেন্টিনা)

২, লিওনেল মেসি (আর্জেন্টিনা)

৩. পেলে (ব্রাজিল)

৪, ইয়োহন ক্রুইফ (নেদারল্যান্ডস)

৫. ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো (পর্তুগাল)

৬. আলফ্রেডো ডি স্টেফানো (আর্জেন্টিনা/স্পেন)

৭. ফ্রাঙ্ক বেকেনবাওয়ার (জার্মানি)

৮. জিনেদিন জিদান (ফ্রান্স)

৯. ফেরেঙ্ক পুসকাস (হাঙ্গেরি)

১০. রোনাল্ডো (ব্রাজিল)

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।