সরকারি গাছ কেটে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিলেন মির্জাপুরের ইউপি চেয়ারম্যান

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে গ্রামীণ রাস্তা প্রশস্তকরণের জন্য বিশাল আকৃতির কয়েকটি মেহগনী ও ইউকেলিপ্টাস গাছ কেটেছেন উপজেলার ৩নং ফতেপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুর রউফ। পরে তিনি কর্তনকৃত গাছের ছবি নিজের ফেসবুক ওয়ালে পোস্ট করেছেন।

এ নিয়ে স্থানীয়দের মধ্যে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করলেও চেয়ারম্যানের ভয়ে কেউ মুখ খুলতে পারছেন না।

জানা গেছে, উপজেলার ৩নং ফতেপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুর রউফ তার বাড়ির সামনে থেকে পশ্চিমপাড়া মসজিদ পর্যন্ত ৬শ ফুট রাস্তার উন্নয়ন কাজ শুরু করেছেন। মঙ্গলবার রাস্তা প্রশস্ত করার কথা বলে বিশাল আকৃতির কয়েকটি মেহগনি ও ছোট কয়েকটি ইউকেলিপ্টাস গাছ শ্রমিক দিয়ে কেটে ফেলেন।

গাছ কাটার পর ইউপি চেয়ারম্যান নিজের ফেসবুক আইডিতে কর্তনকৃত গাছের পাশে দাঁড়িয়ে ছবি দিয়ে লিখেছেন, ‘ফতেপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের নিজ উদ্যোগে রাস্তার গাছ কেটে মাটিতে ফেলা হচ্ছে।’

আব্দুর রউফের সঙ্গে কথা হলে তিনি বলেন, ইউনিয়ন পরিষদের সার্ভেয়ারের মাধ্যমে পরিমাপ করে দেখা গেছে গাছগুলো সরকারি রাস্তার সীমানার মধ্যে রয়েছে। এ জন্য রোপনকৃত গাছগুলো সংশ্লিষ্ট মালিকদের কেটে নিতে বলা হয়েছে। যারা নিচ্ছেন না তাদের গাছগুলোই কেটে ফেলা হচ্ছে।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইসরাত সাদমীনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, সরকারি রাস্তার পাশে যেকোনো গাছ সরকারের। এই গাছ সরকারের অনুমতি ছাড়া কেউ কাটতে পারবেন না। খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

(মির্জাপুর প্রতিনিধি, ঘাটাইল ডট কম)/-