সখীপুর উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি নিয়ে উত্তেজনা ; ২ দিনের আল্টিমেটাম, অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন

টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি গঠনকে কেন্দ্র করে অর্ধদিবস হরতাল পালন করেছে ছাত্রলীগের বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা। শুক্রবার ভোর ৬ টা থেকে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত এ হরতাল কর্মসূচি পালন করা হয়।

বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা আজ সকাল থেকেই শহরে দফায় দফায় বিক্ষোভ মিছিল, সমাবেশ, রাস্তায় কয়েকটি স্থানে টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ করে রাখে। এ সময় পৌর শহরে স্থানীয়দের মাঝে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। সকল প্রকার যান চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। এতে করে সখীপুর থেকে সারাদেশের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে , শহরে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হয়।

পদ বঞ্চিত ছাত্রলীগের উত্তেজনায় শহরে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

হরতাল শেষে সখীপুর প্রেসক্লাবে সাংবাদিক সম্মেলনের মাধ্যমে কমিটি বাতিলের জন্য দুই দিনের সময় বেঁধে দেন ছাত্রলীগের আন্দোলনকারীরা।

সাংবাদিক সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক মীর্জা শরিফুল ইসলাম শরিফ।

তিনি বলেন, ঘোষিত কমিটির আহবায়ক সজিব আহমেদ একজন অছাত্র, মাদক ব্যবসায়ী এবং বয়স উত্তীর্ণ। ওই কমিটির যুগ্ম আহবায়ক খান রফিকসহ একাধিক সদস্য অছাত্র এবং মাদকসেবী রয়েছে বলে তিনি দাবী করেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন ছাত্রলীগের সদ্য বিলুপ্ত কমিটির সভাপতি আরিফ সরকার, সরকারী মুজিব কলেজের ভিপি আব্দুর রউফ, পৌর ছাত্রলীগের সাবেক আহবায়ক শরিফুল ইসলাম বাবুল, সাবেক যুগ্ম আহবায়ক সিকদার সোহেল, আনিছুর রহমান, মশিউর রহমান শুভ, ঘোষিত কমিটির যুগ্ম আহবায়ক রাসেল আল মামুন, ফরিদুজ্জামান ফরিদ, সদস্য আমিনুল ইসলাম রতন, শাহিন আহমেদ, শরীফ, সিমান্ত, প্রমূখ।

উল্লেখ্য, গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সখীপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সজিব আহমেদকে আহবায়ক করে ১০১ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি আনুমোদন করেন টাঙ্গাইল জেলা ছাত্রলীগ। এতে ৬ জনকে যুগ্ম আহবায়ক করা হয়। তারা হলেন খান রফিক, আজাদ হিরা, আবু শিহাব, জামিল আহমেদ, রাসেল আল মামুল ও ফরিদুল ইসলাম ফরিদ। কমিটি গঠনের খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে পদ বঞ্চিত ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের মধ্যে তীব্র উত্তেজনা দেখা দেয়। বৃহস্পতিবার রাতেই কমিটি বাতিলের দাবিতে দফায় দফায় বিক্ষোভ মিছিল ও স্থানীয় তালতলা চত্বরে আগুন জ্বালিয়ে সড়ক অবরোধ করেন বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা। এ সময় টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড.জোয়াহেরুল ইসলামের কুশপুত্তলিকা দাহ ও তাঁকে সখীপুর থেকে অবাঞ্ছিত ঘোষনা করা হয়।

(সাজ্জাত লতিফ, সখীপুর, ২৬ জানুয়ারি ২০১৮, ঘাটাইল ডট কম)/-

53total visits,1visits today