মতামতঃ সাংবাদিকতায় প্রশিক্ষণে তৃণমূলে বাংলাদেশ প্রেস ইনস্টিটিউট (সমাপনী পর্ব)

প্রশিক্ষণের সমাপনী দিনে সংবাদ ও অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের তথ্য সংগ্রহ, লেখার কৌশল নিয়ে সেশন পরিচালনা করেন প্রশিক্ষণের সমন্বয়কারী এবং পি.আই.বি. রিপোর্টার জিলহাজ উদ্দিন নিপুন। এ সময় তিনি বলেন, সংবাদপত্রের দায়িত্ব শুধু নথিবদ্ধ করা নয় উন্মোচিত করাও। গণতান্ত্রিক বিশ্বে জনগনের জানার অধিকার (Right of Information) স্বীকৃত। অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা আসলে এক প্রকার তথ্য উন্মোচন প্রক্রিয়া। অনুসন্ধানী প্রতিবেদন প্রকৃত অর্থে গভীরতম প্রতিবেদন।

পরবর্তীতে তথ্য অধিকার আইন-২০০৯ সেশন পরিচালনা করেন বাংলাদেশ প্রেস ইনস্টিটিউটের পরিচালক (অধ্যয়ন ও প্রশিক্ষন) যুগ্ম সচিব আনোয়ারা বেগম। তিনি বলেন, সমাজের দর্পণ ও রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ সাংবাদিক। তাই তারা যদি নিজের বিবেক দিয়ে বাক স্বাধীনতায় তথ্য অধিকার আইনের ক্ষমতায়ন প্রয়োগ করলে দেশে সুশাসন ও জবাবদিহিতা আসবে। সাংবাদিকরাই হচ্ছে তথ্য অধিকার আইন প্রয়োগের প্রধান হাতিয়ার।

বিকেলে ঘাটাইল প্রেস ক্লাবের সভাপতি মোঃ নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রশিক্ষণার্থীদের হাতে সনদপত্র তুলে দেন পিআইবি পরিচালক (অধ্যয়ন ও প্রশিক্ষন) আনোয়ারা বেগম। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আবুল কাশেম মোহাম্মদ শাহীন। আরো বক্তব্য রাখেন তিন প্রশিক্ষণার্থী সাংবাদিক গোলাম সামদানী, আব্দুর রাজ্জাক ও খান ফজলুর রহমান।

 

(এম. আই. শিহাব/ ঘাটাইল.কম)/-